বরগুনায় শ্যালককে ফাসাতে গিয়ে দুলা ভাই ফেসে যায়

স্টাফ রির্পোটারঃ বরগুনায় আপন শ্যালকে ইয়াবা দিয়ে ফাসাতে গিয়ে দুলাভাই নিজেই ফেসে গেলেন। পুলিশ সংবাদ পেয়ে দুলা ভাই, দোকানী ও শ্যালককে গ্রেফতার করে। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার বেলা ১১ টায় বরগুনা পৌরসভার সদরঘাট জামে মসজিদের সামনে। গ্রেফতারকৃত আসামীরা হল, বেতাগী উপজেলার সরিষামুড়ি গ্রামের হুমায়ূন কবিরের ছেলে আল-আমীন ওরফে মাসুদ ও সদর উপজেলার বড় গৌরীচন্না গ্রামের নেছার উদ্দিনের ছেলে আল-আমীন মিয়া ও শ্যালক জোবায়ের। পরে জোবায়েরকে ছেড়ে দেয়া হয়। দুলা ভাই আল আমীন মাসুদের কাছ থেকে ১০০ পিচ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

জেলা গোয়েন্দা শাখার অফিসার ইনচার্জ শেখ আবদুল্লাহ জানায়, গ্রেফতারকৃত দুলা ভাই আল আমীন মাসুদ ফোন করে জানায়, জোবায়ের নামে এক যুবক বিপুল পরিমান ইয়াবা বড়ি একটি ব্যাগে করে সদর ঘাট মসজিদের পাশে দোকানে রেখেছে। পুলিশ ঘটনা¯’লে গেলে ভগ্নিপতি আল আমীন মাসুদ ওই ব্যাগটি দেখিয়ে দেয়। তখন শ্যালক জোবায়ের ছিল না। দোকানী আল আমীন মিয়াও সাক্ষী দেয় শ্যালক জোবায়ের ব্যাগটি রেখে গেছেন। পুলিশের সন্দেহ হলে দুলা ভাই আল আমীন মাসুদ, শ্যালক জোবায়ের ও দোকানী আল আমীন মিয়া আটক করে গোয়েন্দা অফিসে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে দুলা ভাই আল আমীন মাসুদ স্বীকার করে। ইয়াবা তিনি রেখে তার শ্যালককে ফাসাতে চেয়েছিল। দুলা ভাই আল আমীন মাসুদ তার শ্যালক জোবায়েরের কাছে এক লাখ টাকা ধার চেয়ে না পাওয়ায় তিনি এ কাজটি করেছেন। এ ব্যাপারে কাজি ওবায়দুল কবির বাদী হয়ে বরগুনা থানায় একটি মামলা করেছে।

Comments Us On Facebook: