“আখেরী মোনাজাত” আখেরী অফার গ্রহণের আখেরী চান্স !

সকালে রাস্তার অবস্থা দেখলে আপনিও ভাবতেন আখেরী মোনাজাতে অংশ নেওয়াটা যেন দুনিয়ার সবচেয়ে উত্তম অর্জন, অর্থাৎ আখেরী অফার গ্রহণের আখেরী চান্স। আল্লাহর সব একান্ত বাধ্যগত পরহেজগার বান্দাগণ দলে দলে সমবেত হতে প্রাণপণে ছুটছে। আর আমিই একমাত্র বিপরীতমুখী বান্দা যে কিনা গাড়িবিহীন মানববপূর্ণ রাস্তায় পায়ে হেটে অফিস যাত্রা করে এক গর্হিত কাজে শামিল হয়েছি।

মোনাজাতে অংশগ্রহণকারী অনেকে হয়তো ফজরের নামাজও পড়েনি। হতে পারে কেউ সারারাত অনৈতিক কাজে লিপ্ত ছিল, শরীর কাপড় মন কোনোটার পবিত্রতা অর্জনের প্রয়োজনবোধ না করে মোনাজাতে রওয়ানা হয়েছে।

মেরে ভাই আওর দোস্ত বুজুর্গ, এভাবে অংশ নেয়া আখেরী মোনাজাত কিংবা বিশ্ব ইজতেমা আপনার জীবনে কোন পরিবর্তন ঘটাতে পারবেনা। যদি নিজের মধ্যে পরিবর্তন, সংশোধন ও মান উন্নয়নের তীব্র আকাঙ্ক্ষা না থাকে। পার্থিব লালসায় লিপ্ত হয়ে, কুরআন সুন্নাহ হতে নিজেকে দূরে রেখে, বাতিল পন্থায় জীবনটাকে শুধু সর্বনাশার সাগরেই ডুবানো যায়, কামিয়াব হওয়া যায়না। আল্লাহর দাসত্ব ও রাসুল (সঃ) এর আদর্শ অনুসরণের মধ্যেই রয়েছে ইহকাল ও পরকালের কামিয়াবী!!

আল্লাহ আমাদের সঠিক বুঝ দান করে জীবনকে কুরআন সুন্নাহর সাজে সুসজ্জিত করার তৌফিক দিন! আমীন!

Nur Mohammad

Comments Us On Facebook: