ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাৎ করা হবে ‘তেঁতো ওষুধ’ গিলে খাওয়ার সমতুল্য: ইমরান খান

পাকিস্তান তেহরিকে ইনসাফ (পিটিআই) দলের চেয়ারম্যান ইমরান খান বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে যদি তার সাক্ষাৎ করতে হয়, তবে তা হবে তেতো ওষুধ গেলার নামান্তর। এখানে তেতো ওষুধ বলতে তিনি সম্ভবত অনীহা ইংগিত করেছেন। এ খবর দিয়েছে এপি।উল্লেখ্য, তিনি যদি পাকিস্তানের নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বিজয়ী হন, তবে ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন কি না এমন প্রশ্নের উত্তরে এ কথা বলেন ইমরান।মার্কিন সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ইমরান খান বলেন, ৯/১১ ঘটনার জেরে ২০০১ সাল থেকে শুরু হওয়া সন্ত্রাসবাদ বিরোধী যুদ্ধে পাকিস্তানের যে অংশগ্রহণ, তা তিনি সমর্থন করেন না। বলেন, এমন নয় যে আমি সন্ত্রাসবিরোধী যুদ্ধে

যুক্তরাষ্ট্রকে সহায়তা দেবার বিরোধী।সহায়তা অবশ্যই দেয়া উচিত। তবে সহায়তার মানে এই নয় যে, তা করতে গিয়ে নিজেদের দেশের সীমান্তে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সামরিক কর্মকান্ড বা যুদ্ধ চালানো। এটি করতে গিয়ে আফগান সীমান্তে বসবাস করা স্বদেশী জনগণের বিরুদ্ধেই আমরা যুদ্ধে জড়িয়ে পড়েছি। এর কোন দরকার ছিল না।পাকিস্তানকে নিয়ে করা ট্রাম্পের সাম্প্রতিককালের টুইট নিয়ে ইমরান বলেন, সন্ত্রাসবাদ প্রশ্রয় দেবার অভিযোগের নামে তিনি আসলে পাকিস্তানকে বলির পাঁঠা বানিয়েছেন। তালিবান প্রতিহত করে আফগানিস্তানে শান্তি আনার ব্যাপারে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জোটের ব্যর্থতার দায় ট্রাম্প পাকিস্তানকে দিচ্ছেন। এটি অপমানজনক। এ অবস্থায়, ইমরান যদি নির্বাচনে যেতেন এবং প্রধানমন্ত্রী হন, তবে ট্রাম্পের সঙ্গে তিনি সাক্ষাৎ করবেন কি না বা কথা বলবেন কি না এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, হ্যা, তার (ট্রাম্পের) সঙ্গে সাক্ষাৎ করবো।

Comments Us On Facebook: