শ্রমজীবি মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণে জামায়াত আমীর অধ্যাপক মুজিবুর রহমান

শীতার্ত দরিদ্র জনগণকে শীতবস্ত্র দানসহ সাহায্য নিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য সচ্ছল, দয়ালু, দানশীল ব্যক্তি ও স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এবং জামায়াতের নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর ভারপ্রাপ্ত আমীর ও সাবেক এমপি অধ্যাপক মুজিবুর রহমান আজ ৭ জানুয়ারী প্রদত্ত এক বিবৃতিতে বলেন, “দেশে প্রচণ্ড শৈত্যপ্রবাহ চলছে। শীতার্ত দরিদ্র জনগণ শীতে ভীষণ কষ্ট পাচ্ছে। শীতার্ত দরিদ্র জনগণকে শীতবস্ত্র দানসহ সাহায্য করা সচ্ছল, দয়ালু, দানশীল ব্যক্তি এবং স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাসহ সকলের কর্তব্য।

সম্পদশালী ঈমানদার লোকগণ দরিদ্র ও বিপদগ্রস্ত মানুষের জন্য সাহায্য নিয়ে এগিয়ে আসে কিনা সে জন্য আল্লাহ সুবহানাহু ওয়া তায়ালা প্রাকৃতিক দুর্যোগসহ নানা বিপদ-আপদ দিয়ে মানুষের ঈমান পরীক্ষা করেন। এ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার জন্যই শীতার্ত দরিদ্র মানুষের পাশে সকলের দাঁড়ানো প্রয়োজন।

সারা দেশেই প্রচণ্ড শীত অনুভূত হচ্ছে। বিশেষভাবে দেশের উত্তরাঞ্চলে প্রচ- শীতে মানুষের জীবনযাত্রা ব্যাহত হচ্ছে। দেশের দরিদ্র শীতার্ত জনগণ অর্থের অভাবে শীতবস্ত্র ক্রয় করতে পারছে না। ফলে তারা প্রচ- শীতে কাবু হয়ে সর্দি-কাশিসহ ঠা-া জনিত কত নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। বিশেষ করে দরিদ্র ঘরের শিশু, বৃদ্ধ-বৃদ্ধা ও রুগ্ন ব্যক্তিদের জীবন দুর্বিষহ হয়ে পড়েছে।

দ্রব্যমূল্যের ঊর্দ্ধগতির কারণে দরিদ্র মানুষের যেখানে দু’বেলা খাবারই জুটছে না, সেখানে তারা শীতবস্ত্র ক্রয় করার টাকা পাবে কোথায়? প্রচণ্ড শীতের কবল থেকে দেশের দরিদ্র জনগণকে রক্ষা করার জন্য শীতবস্ত্র দানসহ সাহায্য নিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানো সকলের কর্তব্য।

তাই শীতার্ত দরিদ্র জনগণকে শীতবস্ত্র দানসহ সাহায্য নিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য আমি দেশের সকল সচ্ছল, দয়ালু, দানশীল ব্যক্তি, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এবং বিশেষ করে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সকল নেতা-কর্মীদের প্রতি উদাত্ত আহ্বান জানাচ্ছি।”

Comments Us On Facebook: