জোটের অবমূল্যায়ণের কারণেই ঢাকা উত্তরে জামায়াতের প্রার্থী ঘোষণা!

এম এস চৌধুরী: ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের উপনির্বাচনে বিএনপির পাশাপাশি জোটের প্রধান শরিক বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীও অংশ নিবে বলে জানিয়েছে দলটি।

ইতোমধ্যে মেয়র নির্বাচনের জন্য দলের পক্ষ থেকে সাবেক ছাত্র নেতা সেলিম উদ্দিনকে বাছাই করা হয়েছে বলেও জামায়াতের একাধিক সূত্র থেকে জানা গেছে। এছাড়া বেশ কয়েকটি ওয়ার্ডেও নির্বাচনের জন্য দলটি প্রস্তুতি নিচ্ছে বলেও জানা গেছে।

সূত্র থেকে জানা যায়, ঢাকা উত্তরে নির্বাচনের জন্য জামায়াতের কর্মী-সমর্থকদের প্রথম চাহিদা দলের ঢাকা মহানগরী উত্তরের আমির সেলিম উদ্দিন। ইতোমধ্যে তাকে মনোনয়ন দেয়ার জন্য দলের নীতিনির্ধারণী ফোরামও একমত হয়েছে।

সূত্র থেকে আরো জানা যায়, নীতিনির্ধারণী ফোরাম তৃণমূলের চাহিদার বিবেচনা ও দলে ক্লিন ইমেজ থাকা এবং বিগত আন্দোলন সংগ্রামে ভূমিকার জন্য সেলিম উদ্দিনকে মেয়র হিসেবে দলীয় মনোনয়ন দিয়েছেন। তবে বিএনপির সাথে বোঝাপড়া নিশ্চিত হওয়ার আগেই জামায়াত প্রার্থী ঘোষণা করায় দলটি এবং জোটের ভেতরে গুঞ্জন শুরু হয়েছে বলেও জানিয়েছে সূত্রটি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জামায়াত ঢাকা মহানগরী উত্তরের এক নেতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, বিএনপির জন্য আমরা সবসময় অবদান রাখি কিন্তু তারা তা কখনোই স্বীকার করে না, বরং আমাদের সমালোচনায় মুখর থাকে। বিগত উপজেলা নির্বাচনগুলোতে জামায়াত বিপুল পরিমাণ ভোট পেলেও বিএনপি সংসদ নির্বাচনে আমাদের চাহিদা অনুযায়ী আসন দিতে চাচ্ছে না। তাই ভোট ব্যাংকে আমাদেরও যে বড় একটি অবস্থান আছে তা প্রমাণ করতেই এ নির্বাচনে অংশ নেয়ার সিদ্ধান্ত।

সেলিম উদ্দিন প্রার্থী হলে বিপুল ভোটে জয়ী হবেন বলে আশা প্রকাশ করে দলটির আরেক নেতা বলেন, সেলিম ভাই মেয়র হলে রাজধানীকে পরিবর্তন করে দিবেন।

তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, জোটের প্রধান শরিক হিসেবে প্রাপ্য থাকলেও বিএনপি জামায়াতকে একটি সিটি করপোরেশনেও নির্বাচন করতে দেয়নি। এবার আর তাদের দিকে চেয়ে থাকার আমাদের সময় নেই বলেও মন্তব্য করেন এই নেতা।

দলটির রংপুর মহানগরী শাখার এক নেতা বলেন, রংপুর সিটি নির্বাচনে বিএনপি জামায়াতকে মূল্যায়ন করেনি। অথচ সেখানে জামায়াতে ৫০ হাজারের বেশি নির্দিষ্ট ভোট ছিল। ফলে তাদের জম হারা হয়েছে। আমরা মনে করি এখন থেকে বিএনপিকে কোনো ছাড় দেয়া যাবে না। সব প্রাপ্য আদায় করে নিতে হবে। ঢাকায় নির্বাচনের সিদ্ধান্তকে আমরা স্বাগত জানাই।

জোটের সঙ্গে আলোচনা না করেই প্রার্থী দেয়ার কারণ জানতে চাইলে দলটির একজন শুরা সদস্য বলেন, বিএনপি যে তাবিথ আউয়ালকে প্রার্থী করেছে কার সাথে আলোচনা করেছে। তারাতো কোনো নির্বাচনেই জোটকে জিজ্ঞেস করে না। নিজেদের মনমতো প্রার্থী দিয়ে দেয়। তারা না করলে আমরা করতে হবে কেন।

এবিষয়ে বিস্তারিত জানতে দলটির মনোনিত মেয়র প্রার্থী সেলিম উদ্দিনের সঙ্গে বার বার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তার ফোনটি সচল পাওয়া যায়নি।

Comments Us On Facebook: