যৌতুকের জন্য গৃহবধুকে পেটানোর ঘটনায় নির্যাতনকারী স্বামী রাজ্জাককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ

হাসান মাহমুদ, লালমনিরহাট প্রতিনিধি: লালমনিরহাট জেলার কালীগঞ্জ উপজেলায় যৌতুকের টাকা দিতে না পারায় স্ত্রীকে পেটানোর ঘটনায় অভিযুক্ত পাষন্ড স্বামী আব্দুর রাজ্জাককে গ্রেফতার করেছে কালীগঞ্জ থানা পুলিশ। বুধবার ভোর রাতে উপজেলার শাখাতী গ্রামের নিজ বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

পরে বুধবার বেলা ১২টার দিকে আদালতের মাধ্যমে তাকে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন থানা পুলিশ।

গ্রেফতারকৃত আব্দুর রাজ্জাক উপজেলার ওই গ্রামের ফজলুল হকের পুত্র। নির্যাতনের স্বীকার গৃহবধু জেলার হাতীবান্ধা উপজেলার পূর্ব সিন্দুর্না গ্রামের মৃত আব্দুল লতিফের মেয়ে রোকসানা বেগম।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার(২১ ডিসেম্বর) বিকেলে কালীগঞ্জ উপজেলার শাখাতী গ্রামে তার বাড়িতে এ নির্যাতনের ঘটনটি ঘটে। পরে গত শনিরবার (২৩ ডিসেম্বর) রাতে ওই গৃহবধুর ভাবী আকলিমা বেগম (৩৫) বাদী হয়ে তিন জনের নাম উল্লেখ করে কালীগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে জানতে কালীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মকবুল হোসেনের সাথে কথা হলে তিনি জানান, স্ত্রী নির্যাতনের ঘটনায় আব্দুর রাজ্জাককে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া বুধবার বেলা ১২টার দিকে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

উল্লেখ্য, যৌতুকের টাকা দিতে না পারায় গত বৃহস্পতিবার(২১ ডিসেম্বর) বিকেলে জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার শাখাতী গ্রামে শশুর বাড়ীতে রোকসানা বেগমকে পাষন্ড স্বামী রাজ্জাক, শাশুড়ী আরজীনা বেগম(৪০) এবং নানী শাশুড়ী ইয়াতন নেছা লাঠি দিয়ে বেধরক পেটান। এতে তার মাথা ফেটে যায়। রোকসানার চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে পার্শ্ববর্তী চামটা হাটে নিয়ে গেলে প্রাথমিক ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়।

এ সময় তার ভাই শিমুল খবর পেয়ে ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এসে ভর্তি করান।

Comments Us On Facebook: