তন্নতন্ন করে খুঁজেও জামায়াত-শিবিরকে অর্থায়নে ইসলামী ব্যাংক জড়িত থাকার তথ্য পাওয়া যায়নি : আরাস্তু খান

জামায়াত-শিবিরকে অর্থায়নে ইসলামী ব্যাংক জড়িত থাকার কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন ইসলামী ব্যাংকের চেয়ারম্যান আরাস্তু খান। তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ ব্যাংক ২০০৭ সাল থেকে তন্নতন্ন করে খুঁজেও জামায়াত-শিবিরকে ইসলামী ব্যাংকের অর্থায়নের কোনো তথ্য বা প্রমাণ পায়নি। এমনকি জঙ্গি কার্যক্রমের সাথে জড়িতদেরকেও ইসলামী ব্যাংক অর্থায়নের কোনো তথ্য আমরা পাইনি।’

মঙ্গলবার ময়মনসিংহের ফুলপুরে ইসলামী ব্যাংকের ৩৩১ তম শাখার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রশ্নোত্তর পর্বে ‘ইসলামী ব্যাংক থেকে জামায়াত-শিবিরকে অর্থায়ন করা হয় কী’- জনৈক গ্রাহকের এমন এক প্রশ্নের জবাবে ব্যাংকের চেয়ারম্যান এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, ‘ইসলামী ব্যাংকের মতো সততা সরকারের মধ্যেও নেই। এত সৎ লোকের প্রতিষ্ঠান আমি আর দেখিনি।’

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আরাস্তু খান বলেন, ইসলামী ব্যাংক ধর্ম, বর্ণ, গোত্র নির্বিশেষে সকল মানুষের ব্যাংক। এ ব্যাংক মানুষের আস্থা ও ভালোবাসা নিয়ে অর্থনৈতিক মসৃদ্ধি ও মানুষের কল্যাণে নিবিড়ভাবে কাজ করছে। তিনি ইসলামী ব্যাংকের সেবাসমূহ কাজে লাগিয়ে ফুলপুর এলাকার মানুষকে নিজেদের ভাগ্যোন্নয়ন ও দেশের চলমান অগ্রগতিকে বেগবান করতে সকলের প্রতি আহবান জানান।

ইসলামী ব্যাংকের অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মাহবুব উল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন ইসলামী ব্যাংকের শরীয়াহ সেক্রেটারিয়েটের নির্বাহী ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. শামসুল হুদা, ময়মনসিংহ জোন প্রধান ও সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট আবু সাঈদ মো. ইদ্রিস, ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রাসেল হোসেন চৌধুরী, পৌরসভার মেয়র মো. আমিনুল হক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান ও মনোয়ারা খাতুন, ফুলপুর ব্যবসায়ি সমিতির সভাপতি রাসেল আহাম্মেদ রয়েল, ফুলপুর মহিলা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ রওশন আরা বেগম, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল হাকীম সরকার ও শাখা ব্যবস্থাপক আব্দুল মান্নান। দোয়া পরিচালনা করেন বালিয়া জামিয়া আরাবিয়া আশরাফুল উলুম মাদরাসার সভাপতি হাফেজ মাওলানা মুজিবুর রহমান।

ইসলামী ব্যাংকের অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. মাহবুব উল আলম বলেন, সারা দেশে ইসলামী ব্যাংকের একশত এজেন্ট ব্যাংকিং রয়েছে। আগামী বছরে ব্যাংকের ৩৫২টি শাখা ও আরো দুই শ’ এজেন্ট ব্যাংকিং চালু করার পরিকল্পনা রয়েছে।
নয়া দিগন্ত

Comments Us On Facebook: